বালুখালীতে ঠাঁই হবে ‘দুই লাখ রোহিঙ্গার

আশরাফুল ইসলাম

সাধারণ সম্পাদক

সেপ্টেম্বর ১০ ২০১৭, ১৩:৫৩

গত ২৪ অগাস্ট মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে কয়েকটি পুলিশ পোস্ট ও একটি সেনা ঘাঁটিতে রোহিঙ্গা বিদ্রোহীদের হামলার পর সেখানে সেনাবাহিনী অভিযান শুরু করলে বাংলাদেশ অভিমুখে নতুন করে রোহিঙ্গাদের ঢল নামে।

এরই মধ্যে তিন লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে ঢুকেছে বলে ধারণা করছে জাতিসংঘ। নতুন করে আসা রোহিঙ্গাদের কক্সবাজারের সীমান্তবর্তী উপজেলাগুলোতে রাখার উদ্যোগ নিয়েছে প্রশাসন। এর বড় আকারে আশ্রয়কেন্দ্র হচ্ছে বালুখালীতে।

খালেদ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, রোহিঙ্গারা কক্সবাজারে ঢুকে বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে-ছিটিয়ে রয়েছে। তাই তাদের এক জায়গায় রাখতে শুধুমাত্র বালুখালী থেকে ত্রাণ কার্যক্রম পরিচালনার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

“বালুখালীতে শেল্টার তৈরির কাজ চলছে এবং রোহিঙ্গাদের সেখানে ত্রাণ ও থাকার ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে। এতে রাস্তাঘাটে ঘোরাফেরা করতে থাকা রোহিঙ্গারাও ত্রাণের জন্য নিজেরাই বালুখালীতে চলে যাবে।

যেখানেই ত্রাণ দেওয়া হচ্ছে সেখান থেকে রোহিঙ্গাদের সরানো যাচ্ছে না জানিয়ে জেলা প্রশাসনের এই কর্মকর্তা বলেন, “আলটিমেটল, তাদের নির্দিষ্ট স্থানে নেওয়ার আমাদের ‘গোল’ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

“তাই, আমরা চেষ্টা করছি, বালুখালী ছাড়া অন্য কোথাও ত্রাণ না দিতে।”

[tabs]

ফিচার আরও