মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১, ০১:৪৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কলাপাড়ায় ২০ মন অবৈধ হাঙ্গর আইনী প্রক্রিয়ায় জব্দ না করায়,বন কর্মকর্তাকে স্বশরীরে ব্যাখ্যা প্রদানের নির্দেশ  দশমিনায় বাল্যবিবাহের দায়ে কনের বাবা, বর, কাজী আটক, অতঃপর কারাদণ্ড বরিশালে বেগম খালেদা জিয়ার আশু রোগ-মুক্তি কামনায় দোয়া-মোনাজাত অনুষ্ঠিত বাউফলে বৃদ্ধ বাবার হাত ভেঙে দিল ছেলে  কলাপাড়ায় গভীর রাতে রাস্তার গাছ কেঁটে নেয়ার অভিযোগ। “অপরাধ মুক্ত সমাজ গরতে কাজ করতে চাই “: ডিসি মনজুর রহমান বরিশালের গণমাধ্যম অফিসে কর্মরত অফিস সহায়কদের মাঝে আবিস্কারের পক্ষ থেকে ঈদ সামগ্রী প্রদান নগরীতে শিক্ষার্থীদের তিন দফা দাবী আদায়ে ছাত্রফ্রন্টের মানববন্ধন বরিশালে বজ্রপাতে নিহত ১ দেশব্যাপী করোনা পরিস্থিতি বরিশাল অসহায় দুঃস্থ মানুষদের পাশে শেখ হাসিনা সেনানিবাস এর সেনারা।
স্বাস্থ্যবিধি মেনে আজ থেকে মার্কেট ও দোকানপাট খোলা

স্বাস্থ্যবিধি মেনে আজ থেকে মার্কেট ও দোকানপাট খোলা

অনলাইন ডেস্কঃ করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় সরকার কর্তৃক ২৮ এপ্রিল পর্যন্ত বর্ধিত লকডাউন শেষ হওয়ার আগেই আজ রবিবার, ২৫ এপ্রিল থেকে খুলে দেওয়া হচ্ছে দেশের সব মার্কেট, দোকানপাট ও শপিং মল। যা স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা থাকবে সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত। শুক্রবার, ২৩ এপ্রিল মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে এ সংক্রান্তন একটি আদেশ জারি করা হয়।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের উপসচিব রেজাউল ইসলামের স্বাক্ষরে জারিকৃত সেই প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ব্যাপক সংখ্যক মানুষের জীবন-জীবিকার বিষয় বিবেচনা করে এ নির্দেশনা জারি করা হলো। প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়, স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনের বিষয়ে সংশ্লিষ্ট বাজার অথবা সংস্থার ব্যবস্থাপনা কমিটি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

এর আগে গত রবিবার, ১৮ এপ্রিল স্বাস্থ্যবিধি মেনে ২২ এপ্রিল থেকে মার্কেট, দোকান ও ক্ষুদ্র ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবি জানায় বাংলাদেশ দোকান মালিক সমিতি। একই সঙ্গে তারা শ্রমিক-কর্মচারীদের দুই মাসের বেতন ও বোনাস বাবদ মোট ৯৬ হাজার ৭০৮ কোটি টাকার অর্ধেক ৪৮ হাজার ৩৫৪ কোটি টাকা ঈদের আগে ঋণ প্রণোদনা হিসেবে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের দেওয়ার দাবি জানায়।

দোকান খুলে দেওয়া প্রসঙ্গে  দোকান দ্বাররা  জানিয়েছেন, পুরোপুরি স্বাস্থ্যবিধি মেনে দোকান খোলার  নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। মার্কেট কমিটিও এ বিষয়ে পদক্ষেপ ও প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে।

উল্লেখ্য, করোনা ভাইরাসের দাপট কমাতে সরকার প্রথমে ৫ থেকে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত নানা বিধিনিষেধ আরোপ করেছিল। পরে এ বিধিনিষেধ আরও দুই দিন বাড়িয়ে ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত করা হয়।এরপর ১৪ এপ্রিল থেকে এক সপ্তাহের জন্য সব ধরনের অফিস ও পরিবহন বন্ধের পাশাপাশি বাজার-মার্কেট, হোটেল-রেস্তোরাঁসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়।

Please Share This Post in Your Social Media




পুরাতন খবর

DEVELOP BY SJ WEB HOST BD
Design By Rana