মঙ্গলবার, ২২ Jun ২০২১, ০৪:১৮ অপরাহ্ন

 ডায়রিয়া প্রতিরোধে উপকূলীয় মানুষের পাশে  বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি।

 ডায়রিয়া প্রতিরোধে উপকূলীয় মানুষের পাশে  বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি।

জাকারিয়া জাহিদ  , কুয়াকাটা (পটুয়াখালী)প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলায়  অনাবৃষ্টির কারণে খাল-বিল পুকুর শুকিয়ে গেছে। দেখা দিয়েছে তীব্র পানি সংকট।
এরফলে পানিবাহিত রোগ বিশেষ করে ডায়রিয়া -কলেরা ও এলার্জি জনিত রোগের প্রাদুর্ভাব অনেকটা বেড়ে গেছে।
তাই ডায়রিয়ার প্রাদুর্ভাবে সরকারের পাশাপাশি বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি কলাপাড়ার মানুষের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে ।
শনিবার(৮ মে) বেলা ১১টায় বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির উদ্যোগে উপকূলীয় দূর্যোগ হ্রাস কর্মসূচির আওতায় কুয়াকাটার মহিপুর হাসপাতালে ১৫০০ প্যাকেট খাবার স্যালাইন এবং ১৫০ পিস কলেরা স্যালাইন বিতরণ করা হয়েছে।
বিতরন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডা: সুধীর কুমার পাল, মেডিকেল অফিসার, উপজেলা কেন্দ্র,  মহিপুর। মো.জাহিদুল ইসলাম সেলিম, প্যানেল চেয়ারম্যান, মহিপুর ও ইউনিয়ন টিম লিডার সিপিপি। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন নিজামপুর সিডিএমসির সাধারণ সম্পাদক মো: নাসির উদ্দিন, কমরপুর সিডিএমসির মো: নজরুল ইসলাম, উপকূলীয় দূর্যোগ হ্রাস কর্মসূচির প্রকল্প কর্মকর্তা মো.জহিরুৃল ইসলাম, সহকারী প্রকল্প কর্মকর্তা বৃন্দাবন চন্দ্র মন্ডল, ফাইনান্স অফিসার ইনজামামুল হক, সিও সাবিনা ইযাসমিন প্রমুখ ।
উপকূলীয় দুর্যোগ হ্রাস কর্মসূচির সহকারী প্রকল্প কর্মকর্তা মো.জহিরুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, প্রচন্ড গরম এবং প্রতিকূল আবহাওয়ায় এলাকার মানুষ অধিকহারে পানিবাহিত রোগে আক্রান্ত হয়েছে। তাই কিছুটা হলেও  বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি কলাপাড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ২০০০ প্যাকেট খাবার স্যালাইন ২০০ পিস কলেরা স্যালাইন এবং তুলাতলী হাসপাতালে ১৫০০ প্যাকেট খাবার স্যালাইন, ১৫০ পিস কলেরা স্যালাইন। সেই সাথে ধানখালী, লালুয়া, মহিপুর ও লতাচাপলী ইউনিয়নের ৫০০০ পরিবারের মধ্যে ১২ পিস করে সর্বমোট ৬০০০০ পিস খাবার স্যালাইন বিতরণ করা হয়েছে এবং মোবাইল মেডিকেল টিমের মাধ্যমে এলাকায় ফ্রি চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media




পুরাতন খবর

DEVELOP BY SJ WEB HOST BD
Design By Rana